ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG
সর্বশেষ:

নিজস্ব প্রতিবেদক

১৫ জুলাই ২০২১, ১১:০৭

রাজধানীতে ভয়ঙ্কর দাপটে ডেঙ্গু, ঝুঁকিতে শিশুরা

19290_Mosquito-Bites-In-Babies.jpg
রাজধানীতে ক্রমেই ভয়ঙ্কর হয়ে উঠছে ডেঙ্গু। প্রতিদিনই হাসপাতালগুলোতে রোগীর চাপ বাড়ছে। রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতাল থেকে প্রাপ্ত তথ্যমতে, উত্তর সিটি করপোরেশনের চেয়ে দক্ষিণ সিটিতে রোগী বেশি । আর অধিকাংশ রোগী ভর্তি হচ্ছেন সায়েদাবাদ ও যাত্রাবাড়ী এলাকা থেকে। তবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলছেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে।
 
চলতি মাসের প্রথম ১৪ দিনেই রাজধানীতে ডেঙ্গু নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে প্রায় ৫০০ জন। যার মধ্যে ২০০ জনই রয়েছে শিশু।  বর্ষা মৌসুম কেবল শুরু তাতেই রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে  প্রতিদিন রোগী ভর্তি হচ্ছেন ২০ থেকে ৩০ জন। এতে নতুন করে আতঙ্কগ্রস্থ হচ্ছে নগরবাসী। তাই অভিভাবকদের আরো সতর্ক হওয়ার তাগিদ বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের।
 
রোগীর স্বজনরা জানান, অধিকাংশের বাড়ির আশপাশে রয়েছে নির্মাণাধীন ভবন। হাসপাতালে ভর্তি এক শিশুরোগীর বাবা জানান, কয়েক দিন ধরে প্রচণ্ড জ্বর থাকায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পরীক্ষা করার পর জানা গেছে ডেঙ্গু হয়েছে।
 
হাসপাতালে আসা এক নারী জানান, আমাদের বাড়ির ওপর এবং পাশে বাড়ি নির্মাণের কাজ চলছে। হয়তো সেখানে পানি জমে মশা হতে পারে। প্রথমে আমার বড় মেয়ের হয়েছিল সুস্থ হওয়ার পর ছোট মেয়েটির হয়েছে। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলছে এখনো মারাত্মক ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা তুলনামূলক কম। তবে যেসব রোগী আসছেন তাদের ৫০-৬০ শতাংশই যাত্রাবাড়ী ও সায়েদাবাদ এলাকার।
 
স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিসংখ্যান বলছে, এই মৌসুমে আক্রান্তের ৪০ শতাংশই ৮-১৬ বছরের মধ্যে। স্কুল বন্ধ, বন্ধ বাইরে যাওয়াও। ফলে শিশুরাই বেশি পড়ছে ঘরকুনো মশা অ্যাডিসের কবলে।

ঢাকা শিশু হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক ডা. রিজওয়ানুল আহসান বিপুল বলেন, এ সময়ে বাচ্চার মশারির ভেতরে থাকতে চায় না। সে জন্য তাদের প্রতি আলাদা নজরদারি রাখতে হবে। বিশেষ করে সেপ্টেম্বর ও অক্টোবর পর্যন্ত বাড়তি সতর্ক থাকতে হবে।
 
সিটি করপোরেশনের তৎপরতার পাশাপাশি অ্যাডিস নিয়ন্ত্রণে ব্যক্তি পর্যায়ে সচেতনতা সবার আগে দরকার বলে মনে করেন বিষেশজ্ঞরা।
 
এদিকে ডেঙ্গুবাহক অ্যাডিস মশা নিয়ন্ত্রণে চলতি সপ্তাহে ১০ দিনের বিশেষ চিরুনি অভিযান শুরু করেছে ঢাকার দুই সিটি করপোরেশন।