ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG
সর্বশেষ:
ব্রেকিং নিউজ
  • মালয়েশিয়ায় সর্বাত্নক লকডাউনের ঘোষণা
  • সোহবত ছাড়া দাওয়াত ফলপ্রসূ হয় না
  • দশ মিনিটে ক্যান্সার পরীক্ষা, হার্ভার্ডে ডাক পেলেন আবু আলী
  • দ্বিতীয় শ্রেণিতে পাশ করেও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক!
  • দেশে নতুন সেনাপ্রধান এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ

নিজস্ব প্রতিবেদক

১০ জুন ২০২১, ১৭:০৬

‘গাঁজার কেক’ দেশে নতুন মাদকের সন্ধান!

18278_pjimage (.jpg

দেশে নতুন মাদক ‘এলএসডি’ সন্ধানের পর তা নিয়ে তদন্ত করতে গিয়ে মিললো নতুন আরেক মাদক ‘গাঁজার কেক’ বা ‘ব্রাউনি’।এবার আলোচনায় আসা ‘গাঁজার কেক’ বা ‘ব্রাউনি’ নিয়ে দেশে তোলপাড় চলছে। তেল, মাখন আর সেদ্ধ গাঁজার নির্যাস দিয়ে তৈরি করা হচ্ছে বিশেষ ধরনের এই মাদক। দেখতে হুবহু কেকের মতো মাদকটির গ্রাহক মূলত উচ্চবিত্তরা। খেতেও প্রায় এক।

আইন প্রয়োগকারী সংস্থা এটিকে দেশে নতুন মাদক বললেও, শোনা যাচ্ছে- গত বেশ কয়েকবছর যাবত দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের তরুণ-তরুণী শিক্ষার্থীদের কাছে এটি বেশ পুরোনোই! যা সিক্রেট গ্রুপের মাধ্যমে অনলাইনেও ব্যাপক বেচাকেনা হতো।

সম্প্রতি নতুন মাদক ‘এলএসডি’ নিয়ে গ্রেপ্তার একজনের কাছে থেকে ‘ব্রাউনি’ বিষয় জেনে পিলে চমকে ওঠে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার দায়িত্বশীলরা। এই গাঁজার কেক মাদকসেবীদের কাছে বেশ পরিচিতি পাওয়ার পরিস্থিতিতে চাঞ্চল্যকর ও উদ্বেগজনক তথ্য পাওয়া গেছে।

ব্যাপক অনুসন্ধানের ভিত্তিতে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) সম্প্রতি এমন একটি মাদকের চালান উদ্ধার করেছে। মাদকসেবীদের কাছে এটি ‘গাঁজার কেক’ বা ‘ব্রাউনি’ উভয় নামেই পরিচিত। এ চালান উদ্ধারের ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ শিক্ষার্থীকে গ্রেপ্তার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। এই মাদক ব্যবসার জন্য ইন্টারনেটে ‘ইনস্টাগ্রামকে’ তারা বেছে নিয়েছিল। এই অ্যাপে একটি পেজ তৈরি করে চক্রটি দেদারছে গাঁজার কেক বিক্রি করে আসছিলো।

গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) বলছে, দেশে গাঁজার কেকের চালান এবারই প্রথম ধরা পড়েছে। গতকাল বুধবার রাজধানীর মোহাম্মাদপুর ও পল্টন এলাকায় অভিযান চালিয়ে দেড় কেজি ওজনের ৪০টি গাঁজার কেক জব্দ করে ডিবির রমনা জোনাল টিম।

অভিযানকালে আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের (এআইইউবি) ছাত্র কাফিল ওয়ারা রাফিদ, ধানমন্ডির অ্যাডভান্সড প্রফেশনালসে চার্টার্ড অ্যাকাউন্টিং পড়ুয়া কাজী রিসালাত হোসেন এবং ইউনিভার্সিটি অব ডেভেলপমেন্ট অলটারনেটিভের (ইউডা) চারুকলা শিক্ষার্থী সাইফুল ইসলাম সাইফকে গ্রেপ্তার করেছে ডিবির সংশ্লিষ্ট টিম। তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মোহাম্মদপুর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

জানা গেছে, গ্রেপ্তারকৃত ২ গাঁজার কেক ব্যবসায়ীর মধ্যে রাফিদের বাবা ইদ্রিস আলী সিঙ্গাপুরে ব্যবসা করেন। মোহাম্মদপুরে তাদের নিজেদের বাড়ি রয়েছে। রিসালাতের বাবার নাম কাজী রওনাক হোসেন। তার দাদা প্রখ্যাত প্রাবন্ধিক কাজী মোতাহার হোসেন। ইউডার চারুকলার শিক্ষার্থী সাইফ খিলাঁও সিপাহীবাগ এলাকায় পরিবারের সঙ্গে বাস করে। রাফিদ পড়াশোনার পাশাপাশি ম্যারাথন দৌড়েও অংশ নিয়েছিল। এমনকি সাইফের মতো সে নিয়মিত সাইক্লিংও করে।

ডিবি জানায়, গাঁজার পাতা থেকে তরল নির্যাস বের করে তৈরি হয় এ কেক এবং অন্য সাধারণ কেকের মতোই খাওয়া যায়। এ কেক যারা খায় তারা বলছে, সিগারেটের খোসায় গাঁজা ভরে সেবনের চাইতে গাঁজার পাতার নির্যাসে তৈরি কেকে কয়েকগুণ বেশি আসক্তি হয় এবং খাওয়ার পর এর প্রতিক্রিয়া শুধু ভয়ঙ্করই নয়, মারাত্মক ক্ষতিকরও বটে।

সম্প্রতি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র হাফিজুর রহমানের বিস্ময়করভাবে আত্মহননের ঘটনার তদন্ত করতে গিয়ে ভয়ঙ্কর মাদক লাইসার্জিক অ্যাসিড ডাইথ্যালামাইডের (এলএসডি) সন্ধান পায় গোয়েন্দা পুলিশ। ডিবি’র বর্ণনা অনুযায়ী এলএসডির ভয়াল পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ায় স্মৃতিকাতর ও কল্পনাপ্রবণ হয়ে পড়েন হাফিজুর এবং নিজের গলা ধারালো দা দিয়ে কেটে ফেলেন। এর ফলে ঘটনার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই তার মৃত্যু হয়। এর পরই এলএসডি মাদকটি নিয়ে বিরাট এক প্রশ্ন দাঁড়ায় তদন্তকারীদের সামনে।