ENGLISH  |  ARABIC  |  NNBDJOBS  |  BLOG
ব্রেকিং নিউজ

এনএনবিডি২৪ ডেস্ক

৩ এপ্রিল ২০২১, ১৭:০৪

লকডাউন ঘোষণার দিনে শনাক্ত ৫৬৮৩, মৃত্যু ৫৮

16579_corona.jpg
ছবি- সংগৃহীত
লকডাউন ঘোষণার দিনে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫,৬৮৩ জন। এই সময়ে মৃত্যু হয়েছে ৫৮ জনের। এই নিয়ে বাংলাদেশে মোট কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন ছয় লাখ ৩০ হাজার ২৭৭ জন। মোট মৃত্যু হয়েছে নয় হাজার ২১৩ জনের।
 
শনিবার (৩ এপ্রিল) স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত সংবাদ বুলেটিনে এসব তথ্য জানানো হয়।
 
গত কয়েকদিন ধরেই বাংলাদেশে প্রতিদিন প্রায় ছয় হাজারের বেশি করোনাভাইরাস রোগী শনাক্ত হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার শনাক্তের সংখ্যা ছিল ৬,৪৬৯ জন। শুক্রবার শনাক্তের সংখ্যা ছিল ৬,৮৩০ জন।
 
যদিও অন্যান্য দিনের তুলনায় শুক্রবার নমুনা পরীক্ষার সংখ্যাও কিছুটা কমেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ২৪,৫৪৮ নমুনা পরীক্ষা করে এই ফলাফল পাওয়া গেছে।  প্রতি ১০০ জনের নমুনা পরীক্ষায় ২৩.১৫ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হচ্ছে।
 
স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছে ২,৩৬৪ জন। বাংলাদেশে মোট সুস্থ হলেন পাঁচ লাখ ৪৯ হাজার ৭৭৫ জন।
 
গত বছরের মার্চের ৮ তারিখে বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। এরপরের দুই মাস দৈনিক শনাক্তের সংখ্যা তিন অংকের মধ্যে থাকলেও সেটা বাড়তে বাড়তে জুলাই মাসে সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছায়।
 
গত বছর ২রা জুলাই সর্বোচ্চ ৪,০১৯ জনের মধ্যে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। এরপর বেশ কিছুদিন দৈনিক শনাক্তের সংখ্যা কমতে কমতে এক পর্যায়ে তিনশোর ঘরে নেমে এসেছিল।
 
তবে এবছর মার্চের শুরু থেকেই শনাক্তে ঊর্ধ্বগতি শুরু হয়। এমনকি মৃত্যুর সংখ্যাও বেশ কিছুদিন দশের নিচে ছিল। কিন্তু তাতেও দেখা দেয় ঊর্ধ্বগতি।
 
বাংলাদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক ইতোমধ্যে বলেছেন, সংক্রমণ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ার কারণে হাসপাতালগুলো ইতোমধ্যেই পূর্ণ হয়ে গেছে।
 
চিকিৎসক এবং জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, হাসপাতালগুলোর ওপর যে হারে চাপ বাড়ছে, তাতে করোনাভাইরাসের চিকিৎসা সেবা ভেঙে পড়ার উপক্রম হয়েছে।
 
করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে এই সপ্তাহ থেকেই বাংলাদেশে আবার লকডাউন জারি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।